সাব ইন্সপেক্টর নিয়োগ ২০২২

সাব ইন্সপেক্টর পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২২

আই নিয়োগ পদ্ধতি ২০২৩: Police si niyog 2023 বাংলাদেশ পুলিশে সাব ইন্সপেক্টর (এসআই-নিরস্ত্র) পদে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়েছে। পুরুষ ও মহিলা উভয় প্রার্থীই এই পদে আবেদনের সুযোগ পাবেন। উন্নত বাংলাদেশের উপযোগী করে পুলিশকে গড়ে তোলার লক্ষ্যে এ বছর নতুন নিয়মে এসআই পদে যোগ্য প্রার্থী বাছাই করা হবে। বাংলাদেশ পুলিশে সাব ইন্সপেক্টর (এসআই-নিরস্ত্র) পদে প্রার্থীদের কয়েকটি ধাপে এস আই নিয়োগ পরীক্ষা নেওয়া হবে।

পুরুষ প্রার্থীদের ক্ষেত্রে উচ্চতা ন্যূনতম ৫ ফুট ৬ ইঞ্চি, বুকের মাপ স্বাভাবিক অবস্থায় ৩২ ইঞ্চি এবং প্রসারিত অবস্থায় ৩৪ ইঞ্চি। মহিলা প্রার্থীদের জন্য উচ্চতা ন্যূনতম ৫ ফুট ৪ ইঞ্চি। একটি স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ন্যূনতম স্নাতক ডিগ্রি এবং কম্পিউটারে দক্ষতা থাকতে হবে।সেইসাথে প্রার্থীকে অবিবাহিত হতে হবে।

 

বাংলাদেশ পুলিশে সাব ইন্সপেক্টর (এসআই-নিরস্ত্র) পদে প্রার্থী বাছাইয়ের ধাপগুলো হলো:

 

প্রিলিমিনারি স্ক্রিনিং,

শারীরিক মাপ ও সহনশীলতা পরীক্ষা

লিখিত ও মনস্তত্ত্ব পরীক্ষা

কম্পিউটার-দক্ষতা পরীক্ষা

বুদ্ধিমত্তা ও মৌখিক পরীক্ষা

স্বাস্থ্য পরীক্ষা

পুলিশ ভেরিফিকেশন

মৌলিক প্রশিক্ষণের জন্য চূড়ান্তভাবে মনোনয়ন

প্রিলিমিনারি স্ক্রিনিং

এসএসসি, এইচএসসি, ডিগ্রি/স্নাতক/সমমানের পরীক্ষার ফলাফল এবং উচ্চতার উপর ভিত্তি করে, নিয়োগের নিয়মের উপর ভিত্তি করে ওয়েববেজড প্রিলিমিনারি স্ক্রিনিংয়ের মাধ্যমে শারীরিক সক্ষমতা যাচাই পরীক্ষার জন্য নির্দিষ্ট সংখ্যক যোগ্য প্রার্থীকে নির্বাচিত করা হয়।

 

শারীরিক মাপ ও সহনশীলতা পরীক্ষা

বাংলাদেশ পুলিশে সাব ইন্সপেক্টর (এসআই-নিরস্ত্র) পদের ক্ষেত্রে শারীরিক ফিটনেস পরীক্ষা তিন দিনে বিভক্ত:

 

প্রথম দিন

 

সব কাগজপত্র নিয়ে প্রার্থীরা পরীক্ষার ভেন্যুতে উপস্থিত থাকবেন। ভেন্যুতে উপস্থিত হওয়ার পর একটি নির্দিষ্ট স্কেল দিয়ে তাঁদের উচ্চতা মেপে পরীক্ষার মূল ভেন্যুতে প্রবেশ করানো হবে।

বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত যোগ্যতা অনুযায়ী প্রার্থীদের উচ্চতা, ওজন ও পুরুষ প্রার্থীদের বুকের মাপ পরিমাপ করা হবে।

প্রার্থীদের কাগজপত্র যাচাই করা হবে।

শারীরিক মাপ ও কাগজপত্র যাচাই করে সঠিক পাওয়া গেলে প্রার্থীদের যোগ্য ঘোষণা করা হবে এবং প্রার্থীদের অ্যাডমিট কার্ডের এক কপি শারীরিক সক্ষমতা যাচাই পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করার জন্য দেওয়া হবে।

প্রথম দিনে যোগ্য প্রার্থীদের Physical Endurance Test (PET)–এর সময় জানিয়ে দেওয়ার পাশাপাশি ইনডেমনিটি ঘোষণাপত্রের এক কপি দেওয়া হবে। উক্ত ইনডেমনিটি ঘোষণাপত্রে অভিভাবকের স্বাক্ষরসহ দ্বিতীয় দিনের পরীক্ষায় অংশগ্রহণের পূর্বেই যথাযথ কর্তৃপক্ষের নিকট জমা দিতে হবে।

দ্বিতীয় দিন

 

শারীরিক সক্ষমতা যাচাই পরীক্ষার প্রতি ইভেন্টে আলাদাভাবে কৃতকার্য হতে হবে। কোনো প্রার্থী একটাতে অংশগ্রহণ করে অকৃতকার্য হলে সে পরবর্তী ধাপে অংশগ্রহণ করতে পারবেন না।

 

১ম (দৌড়): পুরুষ প্রার্থীদের ১ হাজার ৬০০ মিটার দূরত্ব ৭ মিনিট ৩০ সেকেন্ডে এবং নারী প্রার্থীদের ১০০০ মিটার দূরত্ব ৭ মিনিটে দৌড়ে দিয়ে অতিক্রম করতে হবে।

 

২য় (লং জাম্প): পুরুষ প্রার্থীদের কমপক্ষে ১০ ফুট ও নারী প্রার্থীদের কমপক্ষে ৬ ফুট দূরত্ব জাম্প করে অতিক্রম করতে হবে। এ ধাপে উত্তীর্ণ হতে সর্বোচ্চ তিনবার সুযোগ পাবেন।

 

৩য় (হাই জাম্প): পুরুষ প্রার্থীদের কমপক্ষে ৩ দশমিক ৫ ফুট এবং নারী প্রার্থীদের কমপক্ষে ২ দশমিক ৫ ফুট উচ্চতা জাম্প করে অতিক্রম করতে হবে। এ ধাপেও উত্তীর্ণ হতে সর্বোচ্চ তিনবার সুযোগ পাবেন।

 

লিখিত ও মনস্তত্ত্ব পরীক্ষা

শারীরিক সক্ষমতা যাচাই পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের তিনটি বিষয়ে ২৫০ নম্বরের লিখিত ও মনস্তত্ত্ব পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।

 

ইংরেজি, বাংলা রচনা ও কম্পোজিশন বিষয়ে ১০০ নম্বর, সাধারণ জ্ঞান ও গণিত বিষয়ে ১০০ নম্বর এবং মনস্তত্ত্ব বিষয়ে ৫০ নম্বরের পরীক্ষা হবে।

 

কম্পিউটার-দক্ষতা পরীক্ষা

লিখিত ও মনস্তত্ত্ব পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের নির্ধারিত স্থান, তারিখ ও সময়সূচি অনুযায়ী কম্পিউটার-দক্ষতা পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে। এ পরীক্ষায় মাইক্রোসফট অফিস, ওয়েব ব্রাউজিং এবং ট্রাবলস্যুটিং বিষয়ে পরীক্ষা দিতে হবে।

 

বুদ্ধিমত্তা ও মৌখিক পরীক্ষা

এ ধাপে প্রার্থীদের ৫০ নম্বরের বুদ্ধিমত্তা ও মৌখিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে। লিখিত, মনস্তত্ত্বসহ বুদ্ধিমত্তা ও মৌখিক পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের ভিত্তিতে নিয়োগবিধি মোতাবেক উত্তীর্ণ প্রার্থীদের ফলাফল প্রকাশ করা হবে।

 

স্বাস্থ্য পরীক্ষা

লিখিত, মনস্তত্ত্ব, বুদ্ধিমত্তা ও মৌখিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীদের কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতাল, ঢাকায় নির্ধারিত তারিখ ও সময়ে স্বাস্থ্য পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে হবে।

 

পুলিশ ভেরিফিকেশন

স্বাস্থ্য পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সময় পূরণকৃত পুলিশ ভেরিফিকেশন ফরম দাখিল করতে হবে। পুলিশ ভেরিফিকেশনে কোনো প্রার্থী সন্তোষজনক বিবেচিত হলেই কেবল প্রশিক্ষণের জন্য প্রাথমিকভাবে মনোনীত করা হবে।

 

মৌলিক প্রশিক্ষণের জন্য চূড়ান্তভাবে মনোনয়ন

মৌলিক প্রশিক্ষণের জন্য মনোনয়ন সিলেকশন বোর্ড কর্তৃক সুপারিশ করা প্রার্থীদের স্বাস্থ্য পরীক্ষায় যোগ্য ঘোষণা ও পুলিশ ভেরিফিকেশন সম্পন্নের পর সন্তোষজনক বিবেচনায় মৌলিক প্রশিক্ষণের জন্য চূড়ান্তভাবে মনোনীত করা হবে। এ ক্ষেত্রে পুলিশ ভেরিফিকেশন ফরমে প্রার্থী কোনো তথ্য গোপন করলে বা অসম্পূর্ণ, ভুল কিংবা মিথ্যা তথ্য দিলে প্রার্থিতা বাতিল করা হবে। ক্যাডেট সাব-ইন্সপেক্টর অব পুলিশ (নিরস্ত্র) হিসেবে নির্বাচিত প্রার্থীদের বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমি, সারদা, রাজশাহীতে এক বছর মেয়াদি মৌলিক প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণ করতে হবে।

 

প্রশিক্ষণকালীন সুযোগ-সুবিধা

প্রশিক্ষণকালীন বিনা মূল্যে আহার, বাসস্থান, ইউনিফর্ম ও চিকিৎসাসেবা প্রদান করা হবে। এ ছাড়া প্রশিক্ষণার্থীরা সরকারি বিধি মোতাবেক নির্ধারিত হারে প্রশিক্ষণ ভাতা প্রাপ্য হবেন; ক্যাডেট সাব-ইন্সপেক্টর অব পুলিশ (নিরস্ত্র) পদে নির্বাচিত প্রার্থীদের মধ্যে কেউ এক বছর মেয়াদি মৌলিক প্রশিক্ষণ গ্রহণের জন্য নির্ধারিত তারিখে বাংলাদেশ পুলিশ একাডেমি সারদায় উপস্থিত না হলে প্রার্থী চাকরিতে যোগদান করতে সম্মত নন বলে বিবেচিত হবে। এ ক্ষেত্রে পরবর্তীকালে তাঁর ওই প্রশিক্ষণ গ্রহণ বা চাকরিতে প্রবেশের আর কোনো সুযোগ থাকবে না। শিক্ষানবিশ সাব-ইন্সপেক্টর অব পুলিশ (নিরস্ত্র ) পদে নিয়োগপ্রাপ্ত প্রার্থীদের শিক্ষানবিশকাল সমাপ্ত না হওয়া পর্যন্ত অবশ্যই অবিবাহিত থাকতে হবে।

 

লিখিত পরীক্ষার প্রস্তুতি

শারীরিক সক্ষমতা পরীক্ষায় উত্তীর্ণ প্রার্থীরা লিখিত পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ পাবেন। প্রতিযোগিতাপূর্ণ এ পরীক্ষায় পাসসহ ভালো নম্বর পেতে হলে নিয়মিত অনুশীলনের কোনো বিকল্প নেই। লিখিত তিনটি ধাপে নেওয়া হবে। পরীক্ষা হবে মোট ২৫০ নম্বরের।

 

ইংরেজি এবং বাংলা রচনা ও কম্পোজিশন ১০০ নম্বরের। এখানে সময় তিন ঘণ্টা। সাধারণ জ্ঞান ও গণিত বিষয়ে ১০০ নম্বরের পরীক্ষা হবে। এখানেও সময় তিন ঘণ্টা। মনস্তত্ত্ব বিষয়ে ৫০ নম্বরের পরীক্ষায় সময় ১ ঘণ্টা।

 

ইংরেজি, বাংলা রচনা ও কম্পোজিশন

ইংরেজি বিষয়ের জন্য মূলত রচনা, শূন্যস্থান পূরণ, বাক্য তৈরি, চিঠি লেখা এবং বাংলা থেকে ইংরেজি অনুবাদ বেশি আসে। রচনার জন্য সমসাময়িক আলোচিত বিষয়, যেমন রোহিঙ্গা, শরণার্থী, স্বাস্থ্য অধিকার, শ্রম অধিকার, লিঙ্গবৈষম্য, আদিবাসী অধিকার ও এসডিজি চ্যালেঞ্জ পড়তে পারেন।

 

অনুবাদ অংশে ভালো করার জন্য ইংরেজি পত্রিকা থেকে নিজে নিজে বাংলা করার চেষ্টা করতে হবে। একই শব্দ বারবার ব্যবহার না করে নতুন নতুন শব্দ ব্যবহার করলে লেখার মান ভালো হয়। তবে শব্দচয়ন যেন সুন্দর ও সাবলীল হয়।

 

বাংলা রচনা ও কম্পোজিশন অংশে গত বছরগুলোতে যে বিষয়গুলো বেশি এসেছে, সেগুলো হলো রচনা, ভাবসম্প্রসারণ, পত্রলিখন, এক কথায় প্রকাশ, বাগ্​ধারা, সমাস, কারক, বিভক্তি ও ইংরেজি থেকে বাংলা অনুবাদ।

 

সাধারণ জ্ঞান ও গণিত

সাধারণ জ্ঞানের জন্য বাংলাদেশ ও বিশ্বের চলতি বিষয়গুলোর ওপর সংক্ষিপ্ত কিংবা বড় প্রশ্ন আসতে পারে। ইংরেজি শব্দের পূর্ণরূপ, সাধারণ বিজ্ঞান, কম্পিউটার, বিখ্যাত ব্যক্তিত্ব, স্থান, রাজধানী, মুদ্রা, জাতিসংঘের বিভিন্ন সংস্থা, আঞ্চলিক ও বিশ্ব রাজনীতি, বিশ্ব অর্থনীতি, বিশ্বব্যাংকসহ বিভিন্ন অর্থনৈতিক ও বাণিজ্যিক সংস্থা, এমডিজি, এসডিজি, বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ চুক্তি গোয়েন্দা সংস্থাসহ পুলিশ-সম্পর্কিত প্রশ্নও এসে থাকে। এ ছাড়া ভৌগোলিক বিষয়াবলি, সাহিত্য-সংস্কৃতি ও প্রযুক্তিবিষয়ক বিষয়গুলোর ওপর প্রস্তুতি নেওয়া যেতে পারে।

 

মনস্তত্ত্ব

এ অংশের জন্য আপনাকে সমার্থক, বিপরীত শব্দ ও শব্দ লেখা ভালোভাবে অনুশীলন করতে হবে। ছোট ছোট গাণিতিক সমস্যা, শব্দের সাদৃশ্য-বৈসাদৃশ্য, বিখ্যাত লেখক—এসব বিষয়ের ওপর প্রস্তুতি নিতে হবে। সময় ভাগ করে পড়তে হবে। এখন থেকেই নিয়মিত জাতীয় দৈনিকগুলো পড়লে অবশ্যই ভালো ফল আসবে।

 

এসআই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২৩

এস আই নিয়োগ আবেদন যেভাবে: বাংলাদেশ পুলিশে সাব ইন্সপেক্টর (এসআই-নিরস্ত্র) পদে আগ্রহী প্রার্থীদের এ লিংকে police.teletalk.com.bd প্রবেশ করে আবেদন করতে হবে। এসআই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২৩ প্রকাশ হওয়া মাত্রই এই পৃষ্ঠায় আবেদন সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য উপস্থাপন করা হবে ।

About Ruma Khatun

আমি একজন সরকারি চাকরিজীবী। আমি শিক্ষার্থীদের জন্য অবসর সময়ে লেখা-লেখি করি। আমি সরকারি বি এল কলেজের সাবেক শিক্ষার্থী।

Check Also

বাংলাদেশ পুলিশ সার্জেন্টে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ

পছন্দের এলাকায় পার্টটাইম/ফুলটাইম চাকরি খুঁজে পেতে এই অ্যাপটি ইন্সটল করে এখনই আবেদন করুন বাংলাদেশ পুলিশের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *